vvvv
Chefs special
Sananda fashion

‘আওজি খাওজি’ রেস্তরাঁর শেফ শুকদেব মাইতিশেয়ার করলেন মাছ ও চিকেনের চারটি অভিনব রেসিপি।

g

চিকেন ড্রাম স্টিক

উপকরণ: চিকেন (লেগপিস) ২ টো, ডিম ১টা, কর্নফ্লাওয়ার ১০০ গ্রাম, ময়দা ৫০ গ্রাম, নুন স্বাদমতো, চিনি সামান্য, গোলমরিচগুঁড়ো ১/২ চা-চামচ, টোম্যাটো সস ৩ টেবলচামচ, চিলি সস ১ টেবল, গাজর ২৫ গ্রাম (কুচানো), পেঁয়াজ ৩০ গ্রাম (কুচানো), ক্যাপসিকাম ২৫ গ্রাম (কুচানো), আদা-রসুনবাটা ১ টেবলচামচ, আজিনামোতো সামান্য, লেবুর রস ১ টেবলচামচ, রিফাইনড অয়েল পরিমাণমতো, রসুনকুচি ১/২ চা-চামচ।

প্রণালী: চিকেন ভাল করে ধুয়ে জল ঝরিয়ে রাখুন। ছুরি দিয়ে চিকেনের গায়ে সামান্য চিরে নিন। একটা পাত্রে চিকেন নিয়ে একে একে আদা-রসুনবাটা ও লেবুর রস দিয়ে ভাল করে মাখিয়ে নিন। চিকেন দু’ঘণ্টা ম্যারিনেট করে রাখুন। অন্য একটা পাত্রে ডিম নিয়ে ভাল করে ফেটিয়ে নিন। এতে একে একে কর্নফ্লাওয়ার, ময়দা, পরিমাণমতো নুন, চিনি, আজিনামোতো ও গোলমরিচগুঁড়ো দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে ঘন ব্যাটার তৈরি করে নিন। প্রয়োজনে অল্প জল মেশাতে পারেন। ননস্টিক প্যানে তেল দিয়ে আঁচে বসান। ম্যারিনেট করে রাখা চিকেন ব্যাটারে ডুবিয়ে গরম তেলে ভেজে নিন। এক পিঠ ভাজা হলে উলটে নিয়ে অপর পিঠটাও ভেজে নিন। অন্য একটা প্যানে অল্প তেল দিয়ে আঁচে বসান। তেল গরম হলে রসুনকুচি দিয়ে সামান্য নাড়াচাড়া করুন। সুগন্ধ বের হলে গাজরকুচি, পেঁয়াজকুচি, ক্যাপসিকামকুচি দিন। সামান্য ভাজাভাজা হলে একে একে নুন, চিনি, গোলমরিচগুঁড়ো দিন। কয়েকমিনিট নাড়াচাড়া করে টোম্যাটো সস, চিলি সস ও অল্প পরিমাণ জল দিয়ে গ্রেভি তৈরি করে নিন। এরমধ্যে ভাজা চিকেন দিয়ে কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করুন। গ্রেভি মাখামাখা হয়ে এলে আঁচ থেকে নামিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন।

ক্রিসপি ফিশ

উপকরণ: ভেটকিমাছের ফিলে ১০০ গ্রাম, আদা-রসুনবাটা ১ চা-চামচ, লেবুর রস ১ টেবলচামচ, ময়দা ৩০ গ্রাম, কর্নফ্লাওয়ার ৫০ গ্রাম, ডিম ১টা, খাবার সোডা ১০ গ্রাম, নুন স্বাদমতো, চিনি সামান্য, আজিনামোতো সামান্য, গোলমরিচগুঁড়ো ১/২ চা-চামচ, হট গার্লিক সস ২ টেবলচামচ, টোম্যাটো সস ১ টেবলচামচ, পেঁয়াজ ৫০ গ্রাম (লম্বা সরু করে কাটা), ক্যাপসিকাম ৫০ গ্রাম (লম্বা সরু করে কাটা),নুন স্বাদমতো, পোঁয়াজশাককুচি ১৫ গ্রাম, রিফাইনড অয়েল পরিমাণমতো।

প্রণালী: মাছের ফিলে লম্বা লম্বা করে কেটে নিন। একটা পাত্র ফিলে নিয়ে আদা-রসুনবাটা ও লেবুর রস দিয়ে ভাল করে মাখিয়ে নিন। ২৫ মিনিট ম্যারিনেট করে রাখুন। অন্য একটা পাত্রে ডিম নিয়ে ভাল করে ফেটিয়ে নিন। এতে একে একে কর্নফ্লাওয়ার, ময়দা, পরিমাণমতো নুন, চিনি, খাবার সোডা, আজিনামোতো ও গোলমরিচগুঁড়ো দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে ঘন ব্যাটার তৈরি করে নিন। ব্যাটারে ম্যারিনেট করে রাখা মাছগুলো ডুবিয়ে গরম তেলে দু’পিঠ লাল করে ভেজে নিন। অন্য একটা প্যানে সামান্য তেল দিয়ে আঁচে বসান। গরম তেলে রসুনকুচি, পেঁয়াজকুচি, ক্যাপসিকামকুচি দিয়ে কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করুন। সামান্য ভাজা ভাজা হলে হট গার্লিকসস, টোম্যাটো সস, নুন দিন। প্রয়োজন হলে সামান্য জল দিন। কম আঁচে কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করে আগে থেকে ভেজে রাখা মাছ দিয়ে টস করুন। সবশেষে উপরে পোঁয়াজশাককুচি ছড়িয়ে আঁচ থেকে নামিয়ে নিন। তৈরি ক্রিসপি ফিশ। প্লেটে সাজিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন।

চিকেন কবিরাজি

উপকরণ: বোনলেস চিকেন কিমা ৭৫ গ্রাম, কাঁচালঙ্কাকুচি ১/২ চা-চামচ, ধনেপাতাকুচি ১/২ চা-চামচ, পেঁয়াজকুচি ১ চা-চামচ, রসুনকুচি ১/২ চা-চামচ, অয়েস্টার্স সস ১ চা-চামচ, নুন, গোলমরিচগুঁড়ো সামান্য, বিস্কুটেরগুঁড়ো ৬০ গ্রাম, চিনি সামান্য, ডিম ৩ টে, কর্নফ্লাওয়ার ২ টেবলচামচ, নুন স্বাদমতো, রিফাইনড অয়েল পরিমাণমতো, ময়দা ২ টেবলচামচ।

প্রণালী: একটা পাত্রে চিকেন কিমা নিয়ে একে একে কাঁচালঙ্কাকুচি, ধনেপাতাকুচি, পেঁয়াজকুচি, রসুনকুচি ও সামান্য অয়েস্টার্স সস, নুন, চিনি, ময়দা ও গোলমরিচগুঁড়ো দিয়ে ভালভাবে মেখে নিন। মিশ্রণটি হাতে অল্প অল্প করে নিয়ে কাটলেটের আকারে গড়ে নিন। কাটলেট বিস্কুটেরগুঁড়োর উপর গড়িয়ে নিন। হাত দিয়ে সামান্য চেপে দিন, যাতে বিস্কুটেরগুঁড়ো কিমার গায়ে ভাল করে লেগে যায়। খেয়াল রাখবেন, কাটলেটের দু’পিঠেই যাতে ভাল করে বিস্কুটেরগুঁড়ো লাগে। একটা আলাদা পাত্রে ডিম নিয়ে ভাল করে ফেটিয়ে নিন। এতে কর্নফ্লাওয়ার ও নুন দিয়ে আরও একবার ভাল করে ফেটিয়ে নিন। ননস্টিক প্যানে তেল দিয়ে আঁচে বসান। কাটলেট ডিমের ব্যাটারে ডুবিয়ে গরম তেলে ভেজে নিন। কাটলেট অল্প ভাজা ভাজা হওয়ার পর ডিমের মিশ্রণটা হাত দিয়ে আস্তে আস্তে কাটলেটের উপর ছড়িয়ে দিন। ডিম ও কাটলেট ভাল করে ভাজা হয়ে গেলে সাবধানে প্যান থেকে তুলে নিন। তৈরি চিকেন কবিরাজি। স্যালাড ও টোম্যাটো সসের সঙ্গে পরিবেশন করুন।

সেজ়ওয়ান ফিশ

উপকরণ: ভেটকিমাছ ১০০ গ্রাম (টুকরো করা), ময়দা ৫০ গ্রাম, কর্নফ্লাওয়ার ১০ গ্রাম, ডিম ১টা, নুন স্বাদমতো, চিনি সামান্য, গোলমরিচগুঁড়ো ১/২ চা-চামচ, আজিনোমোতো সামান্য, শুকনোলঙ্কা ২ টো, পেঁয়াজকুচি ২ টেবলচামচ, রসুনকুচি ১ চা-চামচ ও সেজ়ওয়ান সস ৩ টেবলচামচ, রিফাইনড অয়েল পরিমাণমতো (ভাজার জন্য), পেঁয়াজশাককুচি সামান্য।

প্রণালী: একটা পাত্রে ডিম নিয়ে ভাল করে ফেটিয়ে নিন। একে একে ময়দা, কর্নফ্লাওয়ার, নুন, চিনি গোলমরিচগুঁড়ো ও সামান্য জল দিয়ে ঘন ব্যাটার তৈরি করে নিন। ননস্টিক প্যানে তেল দিয়ে আঁচে বসান। মাছের টুকরোগুলো ব্যাটারে ডুবিয়ে গরম তেলে ভেজে নিন। এক পিঠ ভাজা হলে উলটে নিয়ে অপর পিঠটাও ভেজে নিন। অন্য একটা প্যানে অল্প তেল দিয়ে আঁচে বসান। তেল গরম হলে রসুনকুচি দিয়ে সামান্য নাড়াচাড়া করুন। সুগন্ধ বের হলে পেঁয়াজকুচি দিন। সামান্য ভাজাভাজা হলে শুকনোলঙ্কা দিন। নুন, চিনি, গোলমরিচগুঁড়ো, আজিনোমোতো দিয়ে কম আঁচে কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করুন। সেজ়ওয়ান সস দিন। মিশ্রণটা ভালভাবে ফুটে গেলে তারমধ্যে ভাজা মাছের টুকরোগুলো দিয়ে আরও কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করুন। সবশেষে উপরে পেঁয়াজশাককুচি ছড়িয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন সেজ়ওয়ান ফিশ।

facebook
facebook