Travel
Sananda fashion

অচেনা ইটানগর

একদিকে শতাব্দীপুরনো আদিবাসী সমাজের ঐতিহ্যকে ছুঁয়ে দেখার আনন্দ, অন্যদিকে আধুনিকতাকে প্রতক্ষ্য করা—সব মিলিয়ে ইটানগর ভ্রমণ স্মরণীয় হয়ে থাকার মতো।

g

উত্তর পূর্ব ভারতের সবচেয়ে বড় রাজ্য অরুণাচল প্রদেশের রাজধানী ইটানগর ট্যুরিজ়ম রিসর্ট হিসেবে ভ্রমণার্থীদের কাছে খুব জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। চারপাশ অনুচ্ছ পাহাড়ে ঘেরা, পটে আঁকা ছবির মতো সুন্দর ছোট্ট শহর ইটানগর। এখানকার জলবায়ু নীতিশীতোষ্ণ, স্বাস্থ্যপ্রদত্ত। একদিকে শতাব্দীপুরনো আদিবাসী সমাজের ঐতিহ্যকে ছুঁয়ে দেখার আনন্দ, অন্যদিকে আধুনিকতাকে প্রতক্ষ্য করা—সব মিলিয়ে ইটানগর ভ্রমণ স্মরণীয় হয়ে থাকার মতো।

ইটানগরে দেখার মতো জায়গা অনেক। প্রথমেই চলুন ইটা ফোর্টে। চতুর্দশ শতকে তৈরি এই ফোর্ট দেখতে দেখতে অতীতের ভারতে ফিরে যাবেন আপনি। টিলার ওপর মনোরম বাগিচার মধ্যে বৌদ্ধগুম্ফা তথা মন্দির ইটানগরের আর এক আকর্ষণ। মহামান্য দলাই লামা রোপিত বোধিবৃক্ষটি অনেকেই দর্শন করতে আসেন। তিব্বতীয় শৈলীতে তৈরি গুম্ফা থেকে শহরটি সুন্দরভাবে দেখা যায়। উপজাতীয় সমাজ ও সংস্কৃতির বর্ণময় প্রদর্শনী তথা অরুণাচল প্রদেশ সম্বন্ধে নানা তথ্য, অতীত ও বর্তমানের ইতিহাস সব পাওয়া যাবে কিছুদিন আগে তৈরি জওহর স্টেট মিউজ়িয়ামে। কাঠের তৈরি জিনিস, মিউজিক্যাল ইন্সট্রুমেন্ট, টেক্সটাইল, হ্যান্ডিক্র্যাফ্টস প্রভৃতি প্রত্নতাত্ত্বিক নানা জিনিসের প্রদর্শনী হয় এখানে। এটি সোম ছাড়া প্রতিদিন ১০টা থেকে ৫টা পর্যন্ত খোলা থাকে।

ইটানগর থেকে ৬ কলোমিটার দূরে চমৎকার পিকনিক স্পট গঙ্গা লেক ঘুরে আসতে পারেন একবার। প্রাকৃতিক গাছে ঘেরা এই লেক মুগ্ধ করে প্রকৃতিরসিকদের। বোটিংএর ব্যবস্থা আছে লেকে। প্রকৃতির সান্নধ্য যাঁরা সবসময় উপভোগ করতে চান তাঁরা যেতে পারেন ইটানগর স্যাঙ্কচুয়ারি এ পোলো পার্কে। ২.৫ বর্গ কিমি জুড়ে অভয়ারণ্যের মধ্যে ইটানগরের চিড়িয়াকানাটিও আর এক দ্রষ্টব্য।

ইটানগর থেকে ঘুরে আলতে পারেন হিমালয়ের কোলে অপরূপ নৈসর্গিক সৌন্দর্যে ভরা শহর বমডিলায়। বাস যাচ্ছে ইটানগর থেকে। সময় বুঝে যদি যান, ইটানগরের উপজাতিদের নিজস্ব উৎসব তামালডু, কান, সানকেন ও মোপিন-এ অংশ নিতে পারেন। মেতে উঠতে পারেন উৎসবের আনন্দে।

কীভাবে যাবেন:

কলকাতা থেকে সহজতম পথ বিমানে জোড়হাট গিয়ে সেখান থেকে বাসে ইটানগর যাওয়া। বিমানে গুয়াহাটি হয়ে লীলাবাড়ি গিয়ে সেখান থেকেও বাসে যাওয়া যায়। ট্রেনে কামরূপ বা কাঞ্চনজঙ্ঘা এক্সপ্রেসে গুয়াহাটি গিয়ে বাসে যাওয়া যায় ইটানগর।

কোথায় থাকবেন:

বাজেট অনুযায়ী বিভিন্ন মানের বেসরকারি হোটেল আছে। আছে সার্কিট হাউজ়ও। আরও তথ্য জানতে ফোন করুন কলকাতায় অরুণাচল প্রদেশ পর্যটন দপ্তরে, ২৩৩৪-১২৩৪, ২৩২১-৩৬২৭।

কখন যাবেন:

ইটানগরে সারা বছরই মনোরম আবহাওয়া। তবে বেড়াবার মরসুম অক্টোবর থেকে মার্চ মাস। তবে শীত বেশ বেশি। ভারী উলেন দরকার সে সময় বেড়াতে গেলে।

মনে রাখুন:

সীমান্তবর্তী রাজ্য হওয়ায় অরুণাচল ভ্রমণে কিছু বাধা নিষেধ আছে। ইনার লাইন পারমিট নিতে হয় সবাইকে। এই সংক্রান্ত বিশদ তথ্য জানতে অরুণাচল প্রদেশ পর্যটন দপ্তর, কলকায় যোগাযোগ করতে পারেন।

শপিং:

উপজাতিদের হস্তজাত নানা পণ্যের হ্যান্ডিক্রাফটস সেন্টার থেকে রিনতে পারেন কোট, শাল, কারপেট, ব্যাগ। অপূর্ব হাতের কাজের জিনিস এগুলি। কিনতে পারেন বুদ্ধিস্ট পেন্টিংস।

travel
facebook
facebook